Home / সারাবাংলা / নবীগঞ্জ ব্যাপক আনন্দ উল্লাসে বিজয়াদশমীতে উপজেলার ৯০টি পূজা মন্ডপের দূর্গামুর্তি বিসর্জন করে পুজা সমাপন

নবীগঞ্জ ব্যাপক আনন্দ উল্লাসে বিজয়াদশমীতে উপজেলার ৯০টি পূজা মন্ডপের দূর্গামুর্তি বিসর্জন করে পুজা সমাপন

নবীগঞ্জ উপজেলার ১৩ টি ইউনিয়ন ও ১ টি পৌরসভায় মোট ৯০ টি পূজা মন্ডপে হিন্দু সম্প্রদায়ের ৫ দিনব্যাপী সর্ববৃহৎ উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজা গত শুক্রবার রাতে বিজয়াদশমীতে মুর্তি বিসর্জনের মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। এ পুজাকে কেন্দ্র করে হিন্দু ধর্মাবলম্বী সকল পুজারী ও ভক্তবৃন্দের মাঝে ব্যাপক আনন্দ ও উৎসাহ উদ্দীপনা বিরাজ করছিল যা দশমীতে মুর্তি বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো। শুক্রবার বিকাল থেকেই বিভিন্ন্ মন্ডপের মুর্তি ট্রাকযোগে পজেশন সহকারে শহর প্রদক্ষিন করে করগাও ইউনিয়নের তাজপুর সংলগ্ন পিংলি নদীতে বিসর্জন করা হয়। তবে অনেকেই পাশ্ববর্তী পুকুরঘাটে ও মুর্তি বিসর্জন করেন।
এ বছর উপজেলার ৯০টি পূজা মন্ডপে সরকারের দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান মন্ত্রনালয় থেকে বরাদ্ধ দেওয়া হয়েছে প্রতিমন্ডপে ৫ শত কেজি করে চাল। গত সোমবার থেকে দেবীর বোধনের পর ষষ্টীপুজার মধ্য দিয়ে শুরু হয়ে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ৫ দিনব্যাপী সর্ববৃহৎ এ মহোৎসব শেষ হয় গতকাল শুক্রবার। প্রতি বছরের মতো এ বছরও শান্তিপূর্নভাবে পূজা উদযাপন হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন পূজা উদযাপন কমিটির সকল নেতৃবৃন্দ। তবে নবীগঞ্জ পৌর এলাকার ৮ টি পূজা মন্ডপ কেন্দ্রীয় গোবিন্দ জিউড় আখড়া,লোকনাথ মন্দির,শিবপাশা সন্যাস সংঘ,তিমির পূজা কমিটি,গয়াহরি প্রগতি সংঘ,দেবদূত সংঘ,সুবলবেদের বাড়ী পূজা মন্ডপে পূজারী ও ভক্তবৃন্দের ব্যাপক উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। নবীগঞ্জ কেন্দ্রীয় গোবিন্দ জিউর আখড়া পুজা কমিটির সভাপতি প্রমথ চক্রবর্ত্তী বেনু বলেন,সুন্দর ও সুষ্টিভাবে পুজা অনুষ্টিত হওয়ার উপজেলা পরিষদ,উপজেলা প্রশাসনও পুলিশ প্রশাসনসহ সবাইকে ধন্যবাদ জানাই। নবীগঞ্জ উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদ কমিটির সাধারন সম্পাদক নির্মলেন্দু দাশ রানা বলেন, এ বছরের শারদীয় দুর্গাপুজা সুন্দর ও সুষ্টভাবে সম্পাদনের জন্য উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান,উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনসহ সকল নেতৃবৃন্দকে ধন্যবাদ জানাই।
নবীগঞ্জ উপজেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাধারন সম্পাদক ও নবীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারন সম্পাদক উত্তম কুমার পাল হিমেল বলেন, নবীগঞ্জ উপজেলার ৯০ টি পূজা মন্ডপে ধর্মীয় ভাবগাম্ভির্যের মধ্য দিয়ে সর্ববৃহৎ উৎসব শারদীয় দূর্গাপুজা সাড়ম্বরে পালন করতে পারায় সরকারের প্রধান প্রধানমন্ত্রী ও উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশপ্রশাসন যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করায় দুর্গাপুজা সুন্দর ও সুষ্টভাবে সম্পাদনের জন্য প্রশাসন ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দসহ সকল শ্রেনীপেশার মানুষকে ধন্যবাদ জানাই।
উল্লেখ্য সোমবার থেকে নবীগঞ্জের সকল পুজা মন্ডগুলোতে ষষ্ঠী পুজার মধ্য দিয়ে ৫ দিন ব্যাপী শারদীয় দূর্গাপুজা শুরু হয়ে শেষ হয় গতকাল শুক্রবার। এ বছর দেবী ধরাধামে ঘোটকে আসেন আবার পূজা শেষে দোলায় গমন করেন।

Check Also

ভালুকায় বিশ্ব নদী দিবসে র্র্যালী আলোচনা সভা

  ভালুকা (মময়মনসিংহ) প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের ভালুকায় বিশ্ব নদী দিবস উপলক্ষ্যে র‌্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত …

Leave a Reply