Home / সাহিত্য / আমারবাংলা ভার্চুয়াল সংখ্যা -২০২০ / বন্দ্যোপাধ্যায় ঝুমা’র কবিতা

বন্দ্যোপাধ্যায় ঝুমা’র কবিতা

জোনাকি মন”

কে কাকে আশ্রয় দেয় অসহ্য সময়ে
অকারণ অজুহাতে কেইবা পিছু ডাকে
মনই শুধু জানে গোপন বিরহের ওষুধ
অবহেলা উত্তাপে কে তাকে বেঁধে রাখে।
ঘুরেফিরে আসে সন্দেহ ফেনা বুদবুদ
পরিচয়ে হইনি কখনও চেনা মানুষ
যা কিছু সহজ তাকে ফেলেছি দূরে
আকাশে বাড়ালে হাত শুধুই ফানুস।
মৃত্যু বেঁচে ওঠে স্বৈরাচারীর মতো
‎তোমার আমার সাফল্যের সীমায়
‎অনন্তগামী প্রবণতা বড্ডো সাহসী
‎শাসন করে অতলে রাজকীয় আজ্ঞায়।
তার চেয়ে বৃক্ষ হও শিকড়ে বাঁধা থাক ক্ষয়
অন্ধকারে ফুটে উঠুক একটি দুটি তারা
অতিকায় টর্নেডো- চূড়া যখন নজরেই
কেউ নেই তোমার স্বজন একা তুমি ছাড়া।
কে কাকে আশ্রয় দেয় অসহ্য সময়ে
অকারণ অজুহাতে কেইবা পিছু ডাকে
মনই শুধু জানে গোপন বিরহের ওষুধ
জোনাকি হয়ে নিজেই নিজেকে বেঁধে রাখে।

 

Check Also

কাঁশবনে মন_ সফিউল্লাহ আনসারী

  তোমার যতো ধবধবে রং রাঙিয়ে দিতে আমায় দিও, কাশবনের হাওয়ায় তুমুল ভাবনাতে মেঘ ভরিয়ে …